ঢাকা | জুলাই ২৪, ২০২৪ - ১২:২৪ পূর্বাহ্ন

অ্যাপোলো ক্লিনিক এখন ঢাকায়

  • আপডেট: Wednesday, January 24, 2024 - 3:09 pm
  • পঠিত হয়েছে: 117 বার

টাচ নিউজ ডেস্ক: বাংলাদেশে রোগীদের বিশ্বমানের চিকিৎসা সেবা নিশ্চিতে স্বাস্থ্যখাতে ভারতের বৃহত্তম হাসপাতাল চেইন অ্যাপোলা এখন ঢাকায়। রাজধানীর ধানমন্ডি এলাকায় চালু হতে যাওয়া ‘অ্যাপোলো ক্লিনিক’ পরিচালনা করবে বাংলাদেশের অন্যতম বৃহৎ শিল্পগোষ্ঠী জেএমআই গ্রুপ। এলক্ষ্যে মঙ্গলবার (২৩ জানুয়ারি, ২০২৪) জেএমআই গ্রুপের অঙ্গ প্রতিষ্ঠান জেএমআই স্পেশালাইজড হাসপাতাল লিমিটেড ও ভারতের অ্যাপোলো হেলথ অ্যান্ড লাইফস্টাইল লিমিটেডের মধ্যে একটি লাইসেন্স চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে।

রাজধানীর একটি পাঁচ তারকা হোটেলে আয়োজিত অনুষ্ঠানে নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে স্বাক্ষর করেন জেএমআই গ্রুপের প্রতিষ্ঠাতা ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও জেএমআই স্পেশালাইজড হাসপাতালের চেয়ারম্যান জনাব মো. আবদুর রাজ্জাক এবং অ্যাপোলো হেলথ অ্যান্ড লাইফস্টাইল লিমিটেডের হেড অব ফ্র্যাঞ্চাইজি বিজনেস জনাব তরুণ গুলাটি।

জেএমআই স্পেশালাইজড হসপিটাল হল জেএমআই গ্রুপের অঙ্গ প্রতিষ্ঠান এবং পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানি জেএমআই হসপিটাল রিক্যুইজিট ম্যানুফ্যাকচারিং লিমিটেডের একটি সাবসিডিয়ারি। অন্যদিকে, অ্যাপোলো হেলথ অ্যান্ড লাইফস্টাইল লিমিটেড হল অ্যাপোলো হসপিটালস এন্টারপ্রাইজ লিমিটেডের একটি সাবসিডিয়ারি, যা ভারতের বৃহত্তম হাসপাতাল চেইন এবং সারাবিশ্বে তাদের মালিকানাধীন ৭৫টি হাসপাতাল ও ৩৫০টি ক্লিনিক রয়েছে।

চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে জানানো হয়, জেএমআই স্পেশালাইজড হাসপাতাল ঢাকায় ‘অ্যাপোলো ক্লিনিক’ পরিচালনার অনুমতি পেয়েছে। ভারতের অ্যাপোলোর মতো সেবার মান নিশ্চিতে, ক্লিনিকটিতে দেশের শীর্ষস্থানীয় চিকিৎসক, দক্ষ নার্স এবং ব্যবস্থাপনা কর্মীসহ অত্যাধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার নিশ্চিত করা হবে বলে জানিয়েছেন এর উদ্যোক্তারা। ঢাকার অ্যাপোলো ক্লিনিক থেকে বছরে ১০ লাখের বেশি রোগী স্বাস্থ্যসেবা পাবেন বলেও বলছেন তারা। জেএমআই স্পেশালাইজড হসপিটাল লিমিটেড অ্যাপোলো ক্লিনিক ব্র্যান্ডের সঙ্গে হাত মিলিয়ে সারা দেশে এই পরিষেবা সম্প্রসারণের পরিকল্পনাও করেছে।

লাইসেন্স চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে জেএমআই গ্রুপের চেয়ারম্যান জনাব মো. জাবেদ ইকবাল পাঠান বলেন, “স্বাস্থ্যসেবা খাতে আমাদের সুদৃঢ় অবস্থান রয়েছে এবং দেশ ও জনগণের জন্য স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করার দীর্ঘ যাত্রায় জেএমআই ইতিমধ্যেই একটি বিশ্বস্ত ব্র্যান্ডে পরিণত হয়েছে। এবার আমরা দেশের স্বাস্থ্যসেবা খাতে গুণগত পরিবর্তন আনতে চাই। আজ ভারতের সেরা হাসপাতাল ব্র্যান্ড অ্যাপোলো আমাদেরকে অ্যাপোলো ক্লিনিক, ঢাকা পরিচালনার লাইসেন্স দিতে চলেছে। এটি আমাদের পেশাদার এবং প্রাতিষ্ঠানিক উত্তরাধিকারের আরেকটি পুরস্কার।”

অংশীদারিত্বের ঘোষণা দিয়ে জেএমআই গ্রুপের প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক জনাব মো. আবদুর রাজ্জাক বলেন, “আমরা দেশের স্বাস্থ্যসেবা খাতে গুণগত পরিবর্তন আনতে চাই। এ লক্ষ্যে হাসপাতাল-ক্লিনিক ব্যবস্থাপনায় বিনিয়োগ করছি। ন্যায্য মূল্যে মানসম্পন্ন স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করাই হবে আমাদের বিনিয়োগের মূল লক্ষ্য, যাতে দেশের মানুষ বিদেশে না গিয়ে দেশেই বিশ্বমানের স্বাস্থ্যসেবা পেতে পারে।”

তিনি আরও বলেন, ঢাকায় অ্যাপোলো ক্লিনিক চালু হলে সেখান থেকে বছরে ১০ লাখের বেশি রোগী স্বাস্থ্যসেবা পাবেন। জেএমআই স্পেশালাইজড হসপিটাল লিমিটেড অ্যাপোলোর এই ব্র্যান্ডের সাথে মিলে সারা দেশে ক্লিনিক সেবা সম্প্রসারণের পরিকল্পনা করেছে।

চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে অ্যাপোলো হেলথ অ্যান্ড লাইফস্টাইল লিমিটেডের হেড অব ফ্র্যাঞ্চাইজি বিজনেস জনাব তরুণ গুলাটি বলেন, “জেএমআই বাংলাদেশের অন্যতম সেরা স্বাস্থ্যসেবা ব্র্যান্ড। অন্যদিকে হাসপাতাল-ক্লিনিকের সংখ্যা বিবেচনায় আমরা এশিয়ার শীর্ষস্থানীয় ব্র্যান্ড। তাই, জেএমআই স্পেশালাইজড হসপিটাল লিমিটেডকে বাংলাদেশে অ্যাপোলো ক্লিনিক পরিচালনার লাইসেন্স দিয়েছি আমরা। এখানে আমরা অত্যাধুনিক ডায়াগনস্টিক, পরামর্শ এবং স্বাস্থ্য পরীক্ষার সুবিধা নিশ্চিত করব এবং ধীরে ধীরে আমরা জেএমআই এর সাথে মিলে বাংলাদেশে আমাদের ব্যবসা প্রসারিত করব।”

অ্যাপোলো ক্লিনিক সম্পর্কে বিস্তারিত জানিয়ে জেএমআই স্পেশালাইজড হাসপাতালের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ডা. তামজিদ আলম বলেন, “এই অংশীদারিত্বের মাধ্যমে আমরা অ্যাপোলো ক্লিনিকের ব্যতিক্রমী চিকিৎসা বিশেষজ্ঞদের বাংলাদেশের হৃদয়ে নিয়ে আসা উদ্যোগ নিয়েছি। এটি শুধুমাত্র একটি ক্লিনিক প্রতিষ্ঠার জন্য নয়; বরং এর মাধ্যমে একটি স্বাস্থ্যসেবা ইকোসিস্টেম তৈরি করাই আমাদের মূল লক্ষ্য। আমরা আশা করি যে অ্যাপোলো ক্লিনিক, ঢাকা একটি আশার আলো এবং নিরাময় হবে, যেখানে রোগীরা দেশের মধ্যে বিশ্বমানের চিকিৎসা পাবে।”

জেএমআই গ্রুপের প্রশাসন বিভাগের উপ-মহাব্যবস্থাপক মেজর (অব.) আবদুল্লাহ আল ফারুকীর সঞ্চালনায় চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে জেএমআই গ্রুপের প্রধান অর্থ কর্মকর্তা জনাব মো. জাহাঙ্গীর আলম, জেএমআই হসপিটাল রিক্যুইজিট ম্যানুফ্যাকচারিং লিমিটেডের প্রধান অর্থ কর্মকর্তা জনাব সুবাস চন্দ্র বণিক এবং কোম্পানি সচিব জনাব মো. সফিকুর রহমান, অ্যাপোলো হেলথ অ্যান্ড লাইফস্টাইল লিমিটেডের সহকারী মহাব্যবস্থাপক জনাব সচিন গুপ্তাসহ দেশের শীর্ষস্থানীয় চিকিৎসকরা উপস্থিত ছিলেন।