টাচ নিউজ ডেস্ক: ২০ বছর আগে যুক্তরাষ্ট্রে ৯/১১ হামলায় হতাহতদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা ও শোক জানিয়ে দেশবাসীর প্রতি ঐক্যের ডাক দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। প্রাণঘাতী ওই হামলার দুই দশক পূর্তির সন্ধ্যায় প্রকাশিত এক ভিডিয়ো বার্তায় প্রাণ হারানো ২ হাজার ৯৭৭ জনের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেছেন তিনি।

হামলার পর দেশটির জরুরি সেবাকর্মীরা মানুষকে উদ্ধারে ছুটে গিয়েছিলেন; জো তাদের ব্যাপারে বলেন, ‌‘আমরা তাদের সবাইকে সম্মান জানাই যারা মিনিট, ঘণ্টা, মাস এবং বছরের পর বছরের জন্য তাদের জীবনের ঝুঁকি নিয়েছিলেন এবং অনেকে উদ্ধার কাজ চালাতে গিয়ে জীবনও দিয়েছেন।’

শনিবার যুক্তরাষ্ট্রে ৯/১১ হামলার ২০ বছর পূর্তিতে স্মরণ অনুষ্ঠানের কথা রয়েছে। প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন বলেন, ‘যত সময় পেরিয়ে যাক না কেন, এই স্মৃতিগুলো সবকিছুকে বেদনাদায়কভাবে ফিরিয়ে আনে। যেন মনে হয়, আপনি মাত্র কয়েক সেকেন্ড আগেই দুঃসংবাদটি পেলেন।’

হামলার পর আমেরিকান মুসলিমদের প্রতি মানুষের ক্ষোভ, ক্রোধ, অসন্তোষ এবং সহিংসতার কথা স্বীকার করে নিয়েছেন জো বাইডেন। তবে ঐক্যই যুক্তরাষ্ট্রের ‘সবচেয়ে বড় শক্তি’ রয়ে গেছে বলে মন্তব্য করেছেন তিনি।

তিনি বলেন, আমরা শিখেছি যে, ঐক্য এমন একটি বিষয় যা কখনোই ভাঙে না। এদিকে, ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রে ৯/১১ হামলা আমাদের বিশ্বাস, স্বাধীনতা এবং গণতন্ত্রকে নাড়া দিতে ব্যর্থ হয়েছে। ওই হামলায় যারা মারা গেছেন, তাদের মধ্যে ব্রিটেনের অন্তত ৬৭ নাগরিক ছিল।

আফগানিস্তান থেকে জঙ্গিগোষ্ঠী আল-কায়েদার সদস্যরা চারটি যাত্রীবাহী বিমান ছিনতাই করে যুক্তরাষ্ট্রে আত্মঘাতী ওই হামলা চালায়। এর মধ্যে দু’টি বিমান নিউইয়র্কের বিশ্ব বাণিজ্য কেন্দ্রের টুইন টাওয়ারে আঘাত হানে। অপর একটি বিমান বিধ্বস্ত করা হয় যুক্তরাষ্ট্রের রাজধানী ওয়াশিংটন ডিসির কাছে মার্কিন প্রতিরক্ষা সদর দফতর পেন্টাগনে। এছাড়া যাত্রীবাহী চতুর্থ বিমানটি পেনসিলভানিয়ার একটি মাঠে বিধ্বস্ত হয়।

শনিবার যুক্তরাষ্ট্রে এই হামলার ২০ বছর পূর্তির স্মরণ অনুষ্ঠানের নেতৃত্ব দেবেন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। ফার্স্ট লেডি জিল বাইডেনকে নিয়ে অন্তত তিনটি হামলাস্থল পরিদর্শন করে শ্রদ্ধা জানাবেন তিনি।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে