টাচ নিউজ ডেস্কঃ ভারত থেকে অবৈধভাবে দেশে আসছে প্যাকেটজাত মাংস। লক্ষ্মীপুরে এমন ভারতীয় প্যাকেটজাত মাংসসহ দুই যুবককে আটক করেছে পুলিশ৷ এ সময় তাদের কাছ থেকে ২৫০ কেজি মাংস জব্দ করা হয়েছে।

শনিবার রাত সাড়ে ১১ টার দিকে লক্ষ্মীপুর জেলা শহরের মাদাম ব্রিজ এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়।

আটককৃতরা হলেন, চাঁদপুরের মতলব উপজেলার শাহ আলমের ছেলে মো. শাকিল (২৭) ও লক্ষ্মীপুর শহরের মাদাম এলাকার আবুল খায়েরের ছেলে রহিম (৩০)।

এদিকে জব্দকৃত প্যাকেট মাংসগুলো নিয়ে সন্দেহ দেখা দিয়েছে। মাংসগুলা কিসের তা সুনির্দিষ্টভাবে বলতে পারেনি আটককৃতরা।

তবে অভিযোগ রয়েছে, এসব প্যাকেটজাত মাংস গরুর মাংস হিসেবে জেলার বিভিন্ন খাবারের হোটেলে বিক্রি করা হচ্ছে। সাধারণত গরুর মাংসের চেয়ে এগুলোর দাম অনেক কম।

পুলিশ জানায়, ঢাকা থেকে ইকোনো পরিবহনের মাধ্যমে ১৫ বক্স মাংস লক্ষ্মীপুরে নিয়ে আসা হলে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে মাংসসহ এই দুইজনকে আটক করা হয়।

জানা গেছে, জেলা শ্রমিক লীগের আহ্বায়ক মো. ইউসুফ পাটওয়ারী এ মাংসের ব্যবসা করে আসছেন।

মাংসগুলো বৈধভাবে আমদানি করা হয়েছে বলে দাবি করেছেন এই শ্রমিকলীগ নেতা। তিনি বলছেন, মাংসগুলো ক্রয়ের বৈধ কাগজপত্র আছে। ভারত থেকে বৈধভাবে দেশে মাংসগুলো আমদানি করা হয়। কিন্তু এগুলো কিসের মাংস তা তিনিও সঠিকভাবে বলতে পারেননি।

সদর থানার ওসি (তদন্ত) মো. মমিনুল হক বলেন, মাংসগুলো কিসের তা বলা যাচ্ছে না। তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে