অনলাইন ডেস্ক

স্বামীর প্রতি এক স্ত্রী এতোটাই ক্ষুব্ধ হয়েছেন যে তার পুরুষাঙ্গ কেটে দিয়েছেন। পারিবাকির কলহ ও মৌখিক তালাকের জের ধরে এই কাণ্ড ঘটিয়েছেন ওই স্ত্রী।

সোমবার রাতে সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলার উত্তর কুশিয়ারা ইউনিয়নের দ্বিনপুরে এ ঘটনা ঘটে।

গুরুতর আহত অবস্থায় ওই স্বামীকে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

মঙ্গলবার দুপুরে বিষয়টি জানাজানি হয়। এ নিয়ে এলাকায় তোলপাড় চলছে।

জানা যায়, বেশ কিছুদিন ধরে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে কলহ চলছিল। সোমবার দুপুরে ঝগড়ার একপর্যায়ে স্ত্রীকে তালাক দেন স্বামী। খবর পেয়ে শ্বশুরবাড়ির লোকজন বিষয়টি মীমাংসা করতে মেয়ের জামাইয়ের বাড়িতে যান। রাত বেশি হয়ে যাওয়ায় বিষয়টি অমীমাংসিত রেখে স্ত্রীকে আলাদা ঘরে থাকার নির্দেশ দেয় গ্রামের মুরব্বিরা।

পরে ভোররাতে কৌশলে ব্লেড দিয়ে স্বামীর পুরুষাঙ্গ কেটে দেন স্ত্রী। এ সময় স্বামীর চিৎকারে পরিবারের লোকজন এসে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ফেঞ্চুগঞ্জ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল বাশার মোহাম্মদ বদরুজ্জামান জানান, স্বামীর লিঙ্গ কর্তনের বিষয়ে অভিযোগ পেয়েছি। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য স্ত্রীকে থানায় আনা হয়েছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে