টাচ নিউজ ডেস্কঃ এক লাখ ৮৬ হাজার বীর মুক্তিযোদ্ধাকে তালিকাভুক্ত করে সংশোধিত তালিকা চূড়ান্ত করা হয়েছে। নতুন করে আর কেউ এ তালিকায় যুক্ত হতে পারবে না।

তবে আপিল নিষ্পত্তির মাধ্যমে তালিকাভুক্ত হওয়ার সুযোগ থাকবে বলে জানিয়েছেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক।

বৃহস্পতিবার (২৬ মে) ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটি আয়োজিত বীর মুক্তিযোদ্ধা ডিআরইউ সদস্যদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

আগামী জুন মাস থেকে মুক্তিযোদ্ধাদের পরিচয়পত্র দেয়া হবে। পরিচয়পত্রের কাজ শেষ পর্যায়ে রয়েছে বলেও জানান তিনি।

এর আগে বুধবার (১৮ মে) নারী মুক্তিযোদ্ধা (বীরাঙ্গনা) ছাড়া অন্য ক্যাটাগরির মুক্তিযোদ্ধার গেজেটভুক্তির আবেদন নেয়া বন্ধের ঘোষণা করে সরকার। এ বিষয়ে একটি গণবিজ্ঞপ্তি জারি করেছে জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল (জামুকা)।

জামুকার মহাপরিচালক মো. জহুরুল ইসলাম রোহেল স্বাক্ষরিত ওই গণবিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের ৭৯তম সভার সিদ্ধান্ত মোতাবেক শুধু নারী বীর মুক্তিযোদ্ধা (বীরাঙ্গনা) ছাড়া অন্য কোনো ক্যাটাগরির মুক্তিযোদ্ধার গেজেটভুক্তির নতুন আবেদন করার সুযোগ নেই।

তবে যেসব আবেদন এরইমধ্যে গৃহীত হয়েছে এবং যাচাই-বাছাই বা আপিল পর্যায়ে রয়েছে সেগুলো নিষ্পন্ন করার কাজ যথারীতি চলমান থাকবে বলেও গণবিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে