টাচ নিউজ ডেস্কঃ মহান স্বাধীনতা যুদ্ধের বিজয়ের সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষ্যে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা করেছে বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টি। শোভাযাত্রাটি রাজধানীর মৎস ভবন থেকে শুরু হয়ে শাহবাগ মোড়ে এসে শেষ হয়। শোভাযাত্রায় অংশগ্রহণকারী সকলের মুখে শ্লোগান ছিল স্বাধীনতা এনেছি স্বাধীনতা রাখবো।

সুদৃশ্য ঘোড়ার গাড়ীতে চড়ে বিজয় উৎসব, রং বেরং এর ব্যানার ফেষ্টুন ও লাল সবুজের পোষাকে রঙ্গিন শোভাযাত্রায় নেতৃত্ব দেন রনাঙ্গনের বীর মুক্তিযোদ্ধা মেজর জেনারেল অবঃ সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম বীরপ্রতীক।

এ সময় অন্যান্যের মাঝে উপস্থিত ছিলেন, বিশ্বখ্যাত অপরাধ বিজ্ঞানী স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. শাহেদ চৌধুরী, সহ সভাপতি ও স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্রিগেডিয়ার জেনারেল হাসান নাসির, সহ সভাপতি শাহিদুর রহমান তামান্না, মাহমুদ খান,আলী হোসেন ফরাজী,নাজমুল হুদা অপু, এ এফ এম উবাইদুল্লাহ মামুন, শামসুদ্দিন পারভেজ, মো এমদাদুল হক চৌধুরী অতিরিক্ত মহাসচিব নুরুল আলম পিন্টু, যুগ্ম মহাসচিব ও দপ্তরেরর দায়িত্বপ্রাপ্ত আল আমিন ভূইয়া রিপন, যুগ্ম মহাসচিব সমন্বয় আব্দুল্লাহ আল হাসান সাকিব, সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ ইব্রাহিম খান সাদাত, বরিশাল বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক আবু হানিফ, খুলনা বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা ইদ্রিস আলী, মহিলা কল্যাণ পার্টির সভানেত্রী শাহানা সুলতানা শিলা,সেক্রেটারি রেখা আক্তার, সহ সভাপতি নূর তাজ ঐশী, যুব কল্যাণ সভাপতি জসিম উদ্দিন, সেক্রেটারি নাসির আল মামুন, স্বেচ্ছা সেবক সভাপতি জসিমউদ্দিন, সেক্রেটারি নুরুল আমিন, সাংস্কৃতিক কল্যাণ সভাপতি হোসনী মোবারক সেক্রেটারি নিজামউদ্দিন প্রমুখ।

শোভাযাত্রা শুরুর প্রাক্বালে অতিরিক্ত মহাসচিব নুরুল কবির পিন্টু স্বাগত বক্তব্য রাখেন। শোভাযাত্রায় শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন আলী হোসেন ফরাজী, মাহমুদ খান, নাজমুল হুদা অপু, রাশেদ ফেরদৌস সোহেল মোল্লা, মামুন জোয়ার্দার, মোঃ ইব্রাহিম খান সাদাত, সাহানা সুলতানা শীলা, নূর তাজ ঐশী, জসিমউদ্দিন, শামসুদ্দিন পারভেজ, জসিমউদ্দিন, আবদুল্লাহ আল হাসান সাকিব, ব্রিগেডিয়ার জেনারেল হাসান নাসির, লেঃ কমান্ডার ফয়সল, এ এফ এম উবাইদুল্লাহ মামুন, চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল অবঃ সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম, সভাপতির বক্তব্য রাখেন ড. শাহেদ চৌধুরী।

প্রধান অতিথি বলেন, একজন রনাঙ্গনের যোদ্ধা হিসাবে আমি কথা দিচ্ছি যেভাবে যুদ্ধ করে দেশ স্বাধীন করতে ঝাপিয়ে পড়েছিলাম দেশবাসী যদি কল্যাণ পার্টিকে সুযোগ দেয় তাহলে মুক্তিযুদ্ধের মূলনীতি সাম্য মানবিক মর্যাদা এবং সামাজিক সুবিচার এর ভিত্তিতে দেশ গঠন করা হবে।

তরুণদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, দুর্নীতি এখন আমাদের রাজনীতিকে কলুষিত করছে।তাদেরকে ঘৃণাভরে প্রত্যাখান করতে হবে।কিন্তু রাজনীতি বিমূখ হলে চলবেনা। তরুণদের জন্য কল্যাণ পার্টির দরজা খোলা। রাজনীতিতে গুণগত পরিবর্তন আনতে হলে তরুণদের এগিয়ে আসতে হবে।

তিনি জানুয়ারী ২০২২ কে কল্যাণ পার্টির সাংগঠনিক মাস হিসাবে ঘোষনা করেন।

সভাপতির বক্তব্যে ড. শাহেদ চৌধুরী বলেন, স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীর এই সময়ে পিছনে তাকানোর সংস্কৃতি পরিহার করতে হবে। সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হলে কল্যাণ পার্টির পতাকাতলে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।

বিজয় শোভাযাত্রাটি সফলভাবে সমাপ্ত হওয়ায় চেয়ারম্যান সবাইকে বিশেষ করে দলের সকল স্তরের নেতৃবৃন্দ ও প্রশাসনকে কৃতজ্ঞতা জানান।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে