টাচ নিউজ ডেস্ক: কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরী উপজেলার পাখিউড়া সীমান্তে বিএসএফ-এর হাতে গুলিবিদ্ধ আবুল হাশেম (২৫) নামে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। গতকাল রাত ৯টার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। এর আগে ওইদিন বিকালে গুলিবিদ্ধ হাশেমকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কচাকাটা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মামুন অর রশিদ ও নারায়ণপুর ৫নং ওয়ার্ড সদস্য শাহাদৎ হোসেন।

স্থানীয়রা জানান, মঙ্গলবার ভোরে আবুল হাশেমসহ ৪-৫ জনের একটি দল গরু আনতে যায়। এ সময় তারা আন্তর্জাতিক পিলার ১০৩৯ এর সাব পিলার ৮এস/অস্থায়ী ৭টি পিলার এলাকায় গেলে ভারতীয় ৪১ বিএসএফ মন্ত্রির চর বিওপি’র জওয়ানরা তাদের উপস্থিতি টের পেয়ে গুলি ছোঁড়ে।

এ সময় আবুল হাশেম মাথার পাশে গুলিবিদ্ধ হন। গুরুতর আহত আবুল হাশেমকে তার সঙ্গীরা উদ্ধার করে প্রথমে গোপনে চিকিৎসার ব্যবস্থা করেন। পরে অবস্থার অবনতি হলে তাকে বিকালের দিকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

নিহত যুবক নাগেশ্বরী উপজেলার কচাকাটা থানার নারায়ণপুর ইউনিয়নের কালাইয়ের চর এলাকার আবু বক্কর সিদ্দিকের পুত্র। কচাকাটা থানার অফিসার ইনচার্জ মামুন অর রশিদ জানান, রংপুরে ময়নাতদন্ত শেষে লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে।

সুত্র: মানবজমিন

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে