টাচ নিউজ ডেস্কঃ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের উদ্ধার, চিকিৎসা ও ত্রাণ সহায়তা প্রদান করতে সরকারের পক্ষ থেকে বিভিন্ন ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, ‘মানুষের যাতে কষ্ট না হয় তার জন্য যথাযথ ব্যবস্থা নিচ্ছি।’

রবিবার (১৯ জুন) প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে ‘সাফ চ্যাম্পিয়ন-২০২১ বাংলাদেশ অনুর্ধ-১৯ নারী জাতীয় ফুটবল দল’-এর সংবর্ধনা ও আর্থিক সম্মাননা প্রদান অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘এটা বর্ষাকাল, বিশেষ করে আমাদের সিলেট, সুনামগঞ্জ জেলায় এবারের বন্যাটা একটু ব্যাপকভাবে এসেছে। আমি প্রতিনিয়ত সব খবর রাখছি।’

বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য বিভিন্ন ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানিয়ে তিনি বলেন, আমরা ত্রাণ এবং উদ্ধারের সব কাজ করছি। প্রশাসন, সেনাবাহিনী, নৌবাহিনী, বিমান বাহিনী থেকে শুরু করে আমাদের সব প্রতিষ্ঠান মানুষকে উদ্ধারও তাদের মাঝে ত্রাণ পৌঁছে দেওয়ায় নিয়োজিত রয়েছে। সেই সঙ্গে আমাদের দলের যারা ছাত্রলীগ, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগসহ সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মী বিভিন্ন এলাকায় সহযোগিতা নিয়ে এগিয়ে এসেছে।’

বন্যার পানি নিষ্কাশনে ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, এ জন্য যা যা করণীয় সেটাও আমরা করে যাচ্ছি। পানি নেমে গেলে বন্যা পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবিলায়ও সরকারের প্রস্তুতি রয়েছে।

উত্তরের বন্যার পানি নামার সঙ্গে সঙ্গে মধ্যাঞ্চল এবং দেশের দক্ষিণাঞ্চলে বন্যার সম্ভবনার কথা তুলে ধরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘বন্যা শুরু হয়ে গেছে। বন্যা কিন্তু দক্ষিণাঞ্চলেও যাবে।’

তিনি বলেন, ‘পানি নামতে শুরু করেছে, সুনামগঞ্জ থেকে পানি যখন নামবে, তখন অন্যান্য এলাকা প্লাবিত হতে শুরু করেছে। এটা আমাদের প্রাকৃতিক নিয়ম। বিশেষ করে রংপুর বিভাগ, ময়মনসিংহ বিভাগে বন্যার সম্ভাবনা আছে। এ ব্যাপারে আগে থেকেই আমরা ব্যবস্থা নিচ্ছি।’

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে