টাচ নিউজ ডেস্কঃ রাজশাহী রেলওয়ে স্টেশনে দাঁড়িয়ে থাকা অবস্থায় খুলনাগামী সাগরদাঁড়ি আন্তঃনগর ট্রেনে আগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। রবিবার সকালে যাত্রার ঠিক ১০ মিনিট আগে পাওয়ার কার স্টার্ট করলে একটি বগির টয়লেটের লাইটের সংযোগ থেকে শর্টসার্কিট হয়ে এই অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। তবে তাৎক্ষণিকভাবে আগুন নির্বাপক যন্ত্র দিয়ে তা নিভিয়ে ফেলায় কেউ হতাহত হয়নি। এতে একটি শোভন চেয়ারের কোচ বাতিল করে ওই ট্রেনটি এক ঘণ্টা বিলম্বে খুলনার উদ্দেশ্যে রাজশাহী রেলওয়ে স্টেশন ছেড়ে গেছে।

রাজশাহীর স্টেশনের ম্যানেজার আবদুল করিম বলেন, রবিবার সকাল ৬টা ২০মিনিটের দিকে এ ঘটনা ঘটে। পরে ট্রেনটি সকাল ৭টা ৪০ মিনিটের দিকে খুলনার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়।

পশ্চিমাঞ্চল রেলের মহাব্যবস্থাপক অসীম কুমার তালুকদার জানান, শোভন চেয়ারের একটি বগির টয়লেটের রড লাইটে শর্টসার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাত হয়। তখন ট্রেনটি স্টেশনের প্লাটফর্মে দাঁড়িয়ে ছিল। এতে প্রচণ্ড ধোয়ায় ওই বগিটি আচ্ছন্ন হয়ে যায়। গতকালের মৌলভীবাজারের ঘটনার পর রবিবার এমন ধোঁয়া দেখে ট্রেন যাত্রীরা মুহূর্তেই আতঙ্কিত হয়ে পড়েন। তবে অগ্নিনির্বাপক যন্ত্র দিয়ে তাৎক্ষণিকভাবে ওই আগুন নিভিয়ে ফেলা হয়। অল্পের জন্য সবাই রক্ষা পান। এতে বড় ধরনের কোনো ক্ষয়ক্ষতি বা কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনি। ওই বগির যাত্রীদের অন্য বগিতে নিয়ে যাওয়ার ব্যবস্থা করা হয়। যারা আসন পাননি তাদের টিকিটের টাকা ফেরত দেওয়া হয়। আগুন নেভানোর পর বগিটি খুলে রেখে ট্রেনটি এক ঘণ্টা বিলম্বে খুলনার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে