টাচ নিউজ ডেস্ক: চট্টগ্রাম টেস্টের চতুর্থ দিনের শুরুতে মুশফিককে হারানোর পর লিটনের সঙ্গে দলের হাল ধরেছিলেন অভিষিক্ত ক্রিকেটার ইয়াসির আলী রাব্বি। ৭২ বলে ৩৬ রান করে এর মধ্যেই হাত খুলে খেলার ইঙ্গিত দিচ্ছিলেন। কিন্তু তারপরই যেন বিপদটা ঝড়ের বেগে এলো।

মাথার পেছনের অংশে বেশ জোরে আঘাত লাগে। ফলে মাঠ থেকে উঠেই যেতে হয়েছে বাংলাদেশের অভিষিক্ত এই ব্যাটসম্যানকে।

শাহিনের বাউন্সার সরাসরি গিয়ে আঘাত হানে ইয়াসিরের হেলমেটে। এরপর কয়েকটা বল খেললেও শেষ পর্যন্ত মাঠ ছেড়ে যেতে বাধ্য হন তরুণ ইয়াসির আলী।

ইয়াসির আলি রাব্বির মাথায় স্ক্যান করার জন্য হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। স্ক্যান রিপোর্ট আসার পর জানা যাবে, তার মাথার আঘাতটা কতটুকু এবং কতদিন মাঠের বাইরে থাকতে হবে তাকে।

তার পরিবর্তে কনকাশন হিসেবে খেলতে নামবেন আরেক উইকেটকিপার ব্যাটার নুরুল হাসান সোহান। বিসিবি সূত্রেই এমন খবর পাওয়া গেছে।

শর্ট বলে তেমন স্বাচ্ছন্দ্যে খেলতে পারেন না ইয়াসির, সেটা ভালোভাবেই বুঝতে পেরেছিল পাকিস্তানি পেসাররা। যার কারণে যখনই উইকেটে ইয়াসির আলী, তখনই পাক বোলাররা ধারবাহিকভাবে বাউন্স দিয়ে গেছেন। সেই বাউন্সগুলোর একটিতেই শেষ পর্যন্ত কাল হলো ইয়াসিরের জন্য। শাহিনের বাউন্সারে আঘাত পাওয়ার পর নোমান আলীর ওভার শেষ হওয়ার পরই মাঠ ছাড়েন তিনি।

৪৪ রানের লিড নিয়ে দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করেও শেষ পর্যন্ত অস্বস্তি নিয়েই তৃতীয় দিন দিন শেষ করেছিল বাংলাদেশ। টপ অর্ডারের ব্যর্থতায় দ্বিতীয় ইনিংসে মাত্র ৩৯ রান যোগ করতেই চার চারটি উইকেট হারায় টিম টাইগার্স।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে