টাচ নিউজ ডেস্কঃ বান্দরবানের থানচি উপজেলার জীবননগর এলাকায় পর্যটকবাহী মাইক্রোবাস খাদে পড়ে দুই ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আরও ৭ জন আহত হয়েছেন। তারা সবাই বুয়েটের নিরাপত্তা শাখার কর্মচারী।

আজ বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার দিকে বান্দরবান-থানচি সড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটেছে বলে নিশ্চিত করেছেন থানচির থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুদীপ রায়। নিহতদের মধ্যে হামিদুল ইসলামের নাম পরিচয় জানা গেছে। তিনি বুয়েটের নিরাপত্তা শাখার কর্মচারী। আহতরা হলেন- বুয়েট নিরাপত্তা শাখার কর্মচারী ওয়াহিদ, জয়নাল, মিলন, মঞ্জুর, রাজিব, আব্দুল মালেক এবং চালক ফারুক।

ওসি জানান, সকালে জীবননগর এলাকার ঢালুতে বুয়েটের পর্যটকবাহী মাইক্রোবাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে অন্তত ২০০ ফুট গভীর গিড়িখাদে পড়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলে একজনের মৃত্যু হয়। এ সময় আহত হন আরও আটজন। খবর পেয়ে বিজিবি, পুলিশ, ফায়ার সার্ভিসের সদস্য এবং স্থানীয়রা ঘটনাস্থলে গিয়ে হতাহতদের উদ্ধার করে বান্দরবান সদর হাসপাতালে নিয়ে যান।
বান্দরবান সদর হাসপাতালে নেওয়ার পর মারা যান আরও একজন। আহত বাকি সাতজনকে ওই হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। তিনি আরও জানান, ঢাকা থেকে মাইক্রোবাস ভাড়া করে বান্দরবান বেড়াতে এসে দুর্ঘটনার শিকার হলেন নয়জনের এ পর্যটক দল।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে