টাচ নিউজ ডেস্ক: সরদঘাট টার্মিনালে এমভি পারাবত-১২ লঞ্চের কেবিন থেকে অজ্ঞাত পরিচয় এক নারীর (৩৫) ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। কেবিনের দরজা ভেতর থেকে বন্ধ থাকায় দরজা ভেঙে গলায় ওড়না দিয়ে ঝুলন্ত অবস্থায় লাশটি উদ্ধার করা হয়। ধারণা করা হচ্ছে ওই নারী গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন।ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন সরদঘাট নৌ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) শহিদুল ইসলাম।

রোববার (২৯ আগস্ট) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে কেবিনের দরজা ভেঙে ওই নারীর মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। লাশটি ময়নাতদন্তের জন্য মিটফোর্ড হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

জানা গেছে, শনিবার সন্ধ্যায় বরিশাল থেকে পারাবত-১২ লঞ্চটি ঢাকার উদ্দেশে ছেড়ে আসে। রোববার সকালে লঞ্চটি সদরঘাট টার্মিনালে ভিড়ে। সব যাত্রী নে মে যাওয়ার পর কেবিন বয় ৩১২ নাম্বার কেবিনটি পরিস্কার করতে গেলে দরজা ভেতর থেকে আটকানো দেখতে পায়। কেবিনের জানলা দিয়ে দেখতে পায় নারীর ঝুলন্ত লাশ। সঙ্গে সঙ্গেই কেবিন বয় খবর দেয় লঞ্চের স্টাফদের। খবর পেয়ে সদরঘাট নৌ থানার পুলিশ গিয়ে দরজা ভেঙে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠান।

তিনি আরও জানান, কেবিনটি আনোয়ার হোসেন নামে এক ব্যক্তির নামে বুক করা ছিল। বুকিংয়ের সময় যে মোবাইল নম্বর দেওয়া হয়েছে সেটি বন্ধ পাওয়া যাচ্ছে। লঞ্চের কেবিন বয় মারফত জানা গেছে ওই নারী সর্বশেষ রাত ১০টার দিকে কেবিনে বসে রাতের খাবার খান। লঞ্চের সিসি ক্যামেরার একটি ভিডিও ফুটেজ উদ্ধার করা হয়েছে। সেখানে দেখা যায়, বৃদ্ধ এক লোক ওই নারীকে লঞ্চের কেবিন পর্যন্ত এগিয়ে দিয়ে চলে যায়। ভিডিও ফুটেজটি বরিশাল নৌ পুলিশের কাছে পাঠানো হয়েছে যেন মৃতের পরিচয় শনাক্ত করা যায়।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে