টাচ নিউজ ডেস্কঃ ইয়েমেনের হুথি বিদ্রোহীরা সৌদি আরবের রাষ্ট্রায়ত্ত তেল কোম্পানি আরামকোর জেদ্দার একটি তেল ডিপোতে হামলা চালিয়েছে। যদিও হামলার ব্যাপারে প্রাথমিকভাবে সৌদি আরামকোর তরফে কিছু জানানো হয়নি। দীর্ঘদিন ধরেই হুথিদের টার্গেটে ছিল এটি।

শুক্রবার (২৫ মার্চ) হুথির সামরিক মুখপাত্র ইয়াহিয়া সারিয়া টুইট বার্তায় জানান, গোষ্ঠীটি ক্ষেপণাস্ত্র দিয়ে আরামকোর স্থাপনা এবং ড্রোন দিয়ে রাস তনুরাসহ আরও একটি তেল শোধনাগারে হামলা চালিয়েছে।

এরআগে রবিবার ( ২০ মার্চ) একটি ফর্মুলা ওয়ান রেস আয়োজনের জন্য সৌদির শহরটি প্রস্তুত হওয়ার সাথে সাথে জেদ্দার প্ল্যান্ট থেকে কালো ধোঁয়ার একটি বিশাল বরফ উঠতে দেখা গেছে।

এদিকে, হুথিদের এ হামলার নিন্দা জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। এর আগেও সৌদির বিভিন্ন স্থাপনায় হামলা চালায় হুথি বিদ্রোহীরা।

সম্প্রতি জ্বালানি উৎপাদনে বিনিয়োগ বাড়ানোর ঘোষণা দেয় সৌদি আরবের রাষ্ট্রায়ত্ত তেল কোম্পানি আরামকো। গত বছর দ্বিগুণ মুনাফা অর্জনের খবর সামনে আসার পরপরই এ ঘোষণা দেয় বিশ্বের অন্যতম বৃহত্তম কোম্পানিটি।

চাহিদার তুলনায় তেল-গ্যাসের সরবরাহ কম হওয়ায় সম্প্রতি বিশ্বব্যাপী জ্বালানির দাম বাড়তে থাকে। এরপর শুরু হয় রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ। ইউক্রেন আগ্রাসনের কারণে রুশ জ্বালানির ওপর নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। ফলে রাশিয়ার ওপর জ্বালানি নির্ভরতা কমাতে বিকল্প উৎস খুঁজতে পশ্চিমা নেতাদের ওপর চাপ তৈরি হয়েছে। সে বিষয়টি মাথায় রেখে উৎপাদনে আরও বিনিয়োগ বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেয় সৌদি সরকার, বলছেন সংশ্লিষ্টরা।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে