ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতাররা

টাচ নিউজ ডেস্কঃ চুয়াডাঙ্গায় গুড় কিনে বাড়ি ফেরার পথে এক গৃহবধূকে দলবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় দুজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। সোমবার (২৭ ডিসেম্বর) রাতে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতাররা হলেন- চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার সুমিরদিয়া গ্রামের আমজাদ হোসেনের ছেলে মো. রুবেল হোসেন (৩২), একই গ্রামের আলী হোসেনের ছেলে মো. নাজিম হোসেন (৩০)। এছাড়া মো. বিল্লাল হোসেন নামে অভিযুক্ত আরেকজন পলাতক আছেন।

গৃহবধূর বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, ২৫ ডিসেম্বর খেজুরের গুড় কিনতে এক ব্যক্তির বাড়ি যান ওই গৃহবধূ। রাত ৮টার দিকে পাখিভ্যানে (এক ধরনের যান) বাড়ি ফেরার সময় অভিযুক্ত তিনজন মোটরসাইকেল করে এসে গাড়ির রোধ করে। এরপর ওই গৃহবধূকে তুলে নেন তারা।

এ সময় পাখিচালক বাধা দিলে তাকেও মারধর করেন অভিযুক্তরা। পরে তারা গৃহবধূকে পৌরসভার বুজরুক গড়গড়ী মাদারতলা রোডের পার্শ্ববর্তী আম বাগানে নিয়ে পালাক্রমে ধর্ষণ করেন। এরপর রাত ১২ টায় ওই গৃহবধূকে তার বাড়িতে দিয়ে যান। লোকলজ্জার ভয়ে দুদিন চুপ থাকার পর সোমবার রাতে ওই তিনজনের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ করেন।

চুয়াডাঙ্গা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মহসীন বলেন, ঘটনাটি ২৫ ডিসেম্বরের। কিন্তু গৃহবধূ এতদিন মুখ খুলেননি। সোমবার রাতে অভিযোগ জানানোর সঙ্গে সঙ্গেই অভিযুক্ত দুজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তারা অনেকটা ফিল্মি কায়দায় একটি চলন্ত পাখিভ্যান গতিরোধ করে গৃহবধূকে একটি মোটরসাইকেল করে তুলে নিয়ে যায়। পরে পালাক্রমে ধর্ষণ শেষে গৃহবধূকে বাড়িতে দিয়ে যায়।

ওসি আরও বলেন, এ ঘটনায় দুজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা দিয়ে আদালতে পাঠানোর প্রস্তুতি চলছে। পলাতক একজনকে গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত আছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে