টাচ নিউজ ডেস্কঃ দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ৩৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। এসময়ে ভাইরাসটিতে নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ৪ হাজার ৭৪৬ জন।

এ নিয়ে মহামারি শুরুর পর থেকে এ পর্যন্ত ভাইরাসটিতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২৮ হাজার ৮৭২ জনে দাঁড়িয়েছে। অন্যদিকে মোট সংক্রমিত রোগী বেড়ে পৌঁছেছে ১৯ লাখ ১৯ হাজার ১০২ জনে। দৈনিক শনাক্তের হার ১৩ দশমিক ৭৭ শতাংশ।

মঙ্গলবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের করোনা পরিস্থিতি সংক্রান্ত নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

সারাদেশে ভাইরাসটিতে আগের ২৪ ঘণ্টায় ১৯ জনের মৃত্যু হয়েছিল এবং সংক্রমিত হয়েছিল ৪ হাজার ৬৯২ জন।

এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্তদের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১১ হাজার ৪১৭ জন। এ পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়েছেন ১৭ লাখ ৩ হাজার ৩০৯ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশে সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন ল্যাবে ৩৪ হাজার ১৭৫টি নমুনা সংগ্রহের বিপরীতে নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৩৪ হাজার ৪৫৮টি। দৈনিক পরীক্ষার হিসাবে শনাক্তের হার ১৩ দশমিক ৭৭ শতাংশ। এ পর্যন্ত মোট নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ১ কোটি ৩০ লাখ ৬৪ হাজার ২৪৫টি।

এ পর্যন্ত মোট শনাক্তের হার ১৪ দশমিক ৬৯ শতাংশ, শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৮৮ দশমিক ৭৬ শতাংশ এবং মোট মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৫০ শতাংশ।

২৪ ঘণ্টায় মৃত ৩৪ জনের মধ্যে পুরুষ ২১ জন এবং নারী ১৩ জন। এর মধ্যে ঢাকা বিভাগে ২১ জন, চট্টগ্রামে ২, রাজশাহীতে ১ জন, খুলনা, সিলেট ও রংপুরে ২ জন করে এবং বরিশালে ৪ জন মারা গেছেন।

২০২০ সালের ৮ মার্চ দেশে প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত এবং এর ১০ দিন পর ১৮ মার্চ করোনায় প্রথম কোনো রোগীর মৃত্যুর তথ্য জানায় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। গত বছরের ১০ আগস্ট দেশে করোনায় দৈনিক মৃত্যুর সংখ্যা ছিল সর্বোচ্চ ২৬৪ জন এবং একই বছরের ২৮ জুলাই দৈনিক সর্বোচ্চ শনাক্ত ছিল ১৬ হাজার ২৩০ জন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে