টাচ নিউজ ডেস্ক: খুলনার সোনাডাঙ্গাস্থ মজিদ স্মরণী ল্যাবএইড ডায়াগনষ্টিকে প্যাথোলজি পরীক্ষার রিপোর্ট নিয়ে অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে।রিপোর্ট নিয়ে একাধিক বার অভিযোগ উঠলেও কর্তৃপক্ষের টনক নড়েনি।একই পরীক্ষা অন্য ল্যাবে করলে রিপোর্টে ব্যাপক গরমিল দেখা গেছে।

গত ১৯ আগস্ট মোর্শেদা নাসরিন(৫৩) নামে এক গৃহিণীর থাইরয়েডের টিএসএইচ পরীক্ষার পর ১৯.১৬ ফলাফল হয়। রোগীকে দেখে খুলনা শহীদ শেখ আবু নাসের বিশেষায়িত হাসপাতালের ডায়াবেটিস, থাইরয়েড ও হরমোন রোগ বিশেষজ্ঞ ডা: এ এইচ এম ছাদেকুল ইসলাম ওই রিপোর্ট দেখে রীতিমতো থমকে যান।

থাইরয়েডের ওই পরিমান ফলাফল থাকা একজন রোগীর স্বাভাবিক থাকার কথা নয় বলেও তিনি মন্তব্য করেন।এজন্য তিনি আবারো অন্য জায়গা থেকে একই পরীক্ষাটি করার জন্য পরামর্শ দেন।

মোর্শেদা নাসরিন নামের ওই রোগীকে পরে ২১আগস্ট খুলনার ইসলামী ব্যাংক হাসপাতাল থেকে একই পরীক্ষাটি করানো হয়।কিন্তু সেখানে ফলাফল হয় ৫.২১ আসে।মাত্র দু’দিনের ব্যবধানে একটি পরীক্ষার ফলাফলের এমন পার্থক্য দেখার পর রোগীর পরিবারে দেখা দেয় ক্ষোভ।আসলে ওই দু’টি প্রতিষ্ঠান থেকে দু’দিনের ব্যবধানের দু’ধরনের রিপোর্টের কোনটি সঠিক তা’ নিয়েও প্রশ্ন উঠেছে। চিকিৎসকরা বলছেন, প্রথম রিপোর্টের আলোকে রোগীকে ওষুধ দেয়া হলে অবস্থা হিতে বিপরীত হতে পারতো। এ অবস্থায় রোগীর পরিবারের সদস্যরা সংশ্লিষ্ট ডায়াগনষ্টিক সেন্টারে যোগাযোগ করলে তারা ক্ষমা প্রার্থনা করেন ও বলেন আপনাদের পরিবারের সকল চিকিৎসা বিনামূল্যে ল্যাব এইড কতৃপক্ষ বহন করবে।এ নিয়ে আর কিছু না করার জন্য অনুরোধ করেন।তবে তাদের রিপোর্টটি সঠিক আছে বলে দাবি করেন।এমনকি ওই রক্ত নগরীর আরও একটি হাসপাতাল থেকে পরীক্ষা করেও প্রায় একই ফলাফল পাওয়া যায় বলে তাদের রিপোর্টকে সঠিক বলে দাবি করেন।অর্থাৎ একদিকে রোগীর পরিবারের কাছে ক্ষমা চাওয়া অন্যদিকে নিজেদের ল্যাবের রিপোর্টকে সঠিক দাবি করার বিষয়টি নিয়ে রোগীর পরিবারের সদস্যদের মধ্যেও প্রশ্ন দেখা দেয়।

ল্যাবএইড ডায়াগনষ্টিকের ম্যানেজার জাকারিয়া বলেন,‘এ ব্যাপারে রোগীর লোকদের সাথে কথা হয়েছে। যা বোঝানোর তাদেরকে বুঝিয়ে দেয়া হয়েছে।আমাদের রিপোর্ট ঠিক আছে।অন্য একটি হাসপাতাল থেকেও ওই রক্তের পরীক্ষা করা হয়েছে।সেখানেও প্রায় একই রেজাল্ট এসেছে।’একপর্যায়ে তিনি ক্ষিপ্ত হয়ে বলেন,’রোগীর পরিবারের কাছে আমার দুঃখ প্রকাশ করেছি,তাদের সাথে ভুল বোঝাবুঝির অবসান হয়েছে।এ নিয়ে আপনাদের এত কেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে