টাচ নিউজ ডেস্কঃ বিএনপির দুঃসময়ে দলের পদ বিক্রি করে কোটি টাকার বানিজ্যের অভিযোগ উঠেছে কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা যুবদলের সভাপতি আশিকুর রহমান মাহমুদ ওয়াসিমের বিরুদ্ধে। কুমিল্লার সন্তান কেন্দ্রীয় যুবদলের সিনিয়র সহসভাপতি মোরতাজুল করিম বাদরু এই বাণিজ্যের ভাগ পাচ্ছেন বলেও অভিযোগ আছে।

এ ছাড়া কুমিল্লা দক্ষিণ জেলার বিভিন্ন উপজেলাতে জাতীয়তাবাদী যুবদলের পদ প্রত্যাশীরা তাদের বিরুদ্ধে এই অভিযোগ তুলেন, তারা বলেন যারা বিগত আন্দোলনে রাজপথে ছিল এবং বিভিন্ন মামলা-হামলার শিকার তাদেরকে বাদ দিয়ে টাকার বিনিময়ে কমিটি দেওয়ার চিন্তা করছে।

কুমিল্লা বিভাগীয় দায়িত্ব প্রাপ্ত জাকির সিদ্দিকও জড়িত যার প্রমাণ হিসেবে সদ্য ঘোষিত কুমিল্লা মহানগর যুবদলের পূনার্ঙ্গ কমিটিতে প্রবাসীদেরকে টাকার বিনিময়ে সংগঠনের নিয়মের বাহিরে পদ দেওয়া হয়। পরে তৃনমূলের চাপের মুখে মহানগর যুবদলের সহসভাপতি মামুনুর রশিদ (হংকং প্রবাসী) সহ সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম পারভেজ (সাউথ আফ্রিকা প্রবাসী ) সহ সাধারণ সম্পাদক কাউছার আবেদীন(কাতার প্রবাসী)-দের অব্যাহতি দেয় গত (৫ নভেম্বর ২০২১) যুবদলের কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটি।

আাশিকুর রহমান ওয়াসিম ছাত্রদল থাকায় অবস্থায় ও নেতা বানানোর নামে চৌদ্দগ্রাম, লাকসাম, মনোহরগুঞ্জ, লাঙ্গলকোট থেকে লাখ লাখ টাকার বানিজ্য করে এবং কুমিল্লা চৌদ্দগ্রাম কামরুল হুদার ব্যবসায়িক পার্টনার ওয়াসিম প্রায় ৫০ লক্ষ টাকার বিনিময়ে অযোগ্যদের নেতা বানাচ্ছে যে নেতার ভাই কুমিল্লা মহানগর আওয়ামীলীগ নেতা এবং ভিক্টোরিয়া কলেজের সাবেক ভিপি।

আজকে কেন্দ্রীয় নেতারা ভাগ-বাঁটোয়ার মধ্যে কুমিল্লা বিভাগীয় কমিটি থেকে বিভিন্ন উপজেলা থেকে লক্ষ লক্ষ টাকার বানিজ্য করছে যার মধ্যে মতলব ও হাজীগঞ্জ, শাহরাস্তি, কচুয়া থেকে টাকার বিনিময়ে পদ দিচ্ছে।

এ বিষয়ে কুমিল্লা বিভাগীয় টিমের দায়িত্ব প্রাপ্ত থাকা যুবদলের কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি জাকির হোসেন এর কাছে জানতে চাইলে উনাকে কয়েকবার ফোন দিলেও উনি ফোন ধরেননি।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে