জয় বিশ্বাস, পাথরঘাটা প্রতিনিধি: রাহিমা বেগম (৩২) নামে এক নারী তিন পুত্র সন্তানের জন্ম দিয়েছেন। খুশিতে আত্মহারা রাহিমার পরিবার পরিজনসহ স্বজনরা।

মঙ্গলবার সকাল সাড়ে আটটার দিকে বরগুনার পাথরঘাটায় বেসরকারি শাপলা ক্লিনিকে অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে তিন পুত্র সন্তান ভূমিষ্ঠ হয়। মহা খুশিতে তিন সন্তানের নামও রেখেছেন তারা। সন্তানের নাম হল, রহমাত উল্লাহ, বরকত উল্লাহ ও নেয়ামত উল্লাহ। আল্লাহর প্রতি সন্তুষ্ট হয়ে এ নাম রেখেছেন তারা। অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে পৃথিবীর আলোর মুখ দেখেন ফুটফুটে ওই তিন সন্তান। সিজার অপারেশনের নেতৃত্ব দেন অবসরপ্রাপ্ত উপজেলা স্বাস্থ্য ও পঃ পঃ কর্মকর্তা ডা.বশির আহমেদ।

রাহিমার বেগমের বাড়ি পাথরঘাটা উপজেলার সদর ইউনিয়নের তার স্বামীর নাম মো. মিরাজ হোসেন। সে জেলে শ্রমিক হিসেবে কাজ করে।

এদিকে, একই সঙ্গে তিন ফুটফুটে পুত্র সন্তান জন্ম গ্রহনের খবর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে। যাতে ওই তিন সন্তানের ছবি দিয়ে অনেককেই দোয়া চাইতে দেখা গেছে।

সদ্য ভূমিষ্ঠ হওয়া তিন সন্তানের দাদি লাইলি বেগম ও নানি নাছিমা বেগম বলেন, আমরা মহাখুশি আল্লাহর প্রতি সন্তুষ্ট হয়ে নাম রেখেছি রহমত উল্লাহ, বরকত উল্লাহ ও নেয়ামত উল্লাহ।

তারা আরো বলেন, সন্তানদের চিকিৎসার জন্য অনেক টাকার প্রয়োজন যা আমাদের পক্ষে জোগাড় করা সম্ভব নয় তাই সকলের সহযোগিতা কামনা করেছেন তারা।

শাপলা ক্লিনিক এর ব্যবস্থাপক মো.মিলন বলেন, মঙ্গলবার ভোর পাঁচটার দিকে প্রচন্ড ব্যথা নিয়ে রাহিমা বেগমকে তার স্বজনরা ক্লিনিকে নিয়ে আসেন তাৎক্ষণিক আমরা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে ভর্তি নিয়েছি। চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী অস্ত্রোপচার করা হয়েছে। ভূমিষ্ঠ হওয়া থেকে তিন শিশুকে অক্সিজেনে রাখা হয়েছে।

চিকিৎসক বশির আহমেদ বলেন, গর্ভের বয়স সাড়ে সাত মাস এ কারণে বাচ্চাদের মা আশঙ্কামুক্ত হলেও,বাচ্চা তিনজন ঝুঁকিতে রয়েছে। উন্নত চিকিৎসার জন্য আমরা পরামর্শ দিয়েছি।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে